Logo

নাটোরে জুমার নামাজ পড়াকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ, ৪ পুলিশ সদস্যসহ আহত ৫

নাটোরে জুমার নামাজ পড়াকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষ, ৪ পুলিশ সদস্যসহ আহত ৫

এনামুল হক রাঙ্গা উত্তরাঞ্চল ব্যুরো প্রধান : নাটোর সদর উপজেলার পশ্চিম হাগুরিয়ায় জুমার নামাজ পড়াকে কেন্দ্র করে মুসল্লিদের সাথে সংঘর্ষে ৪ পুলিশ সদস্যসহ অন্তত ৫ জন আহত হয়েছেন। শুক্রবার(১ মে) জুমার নামাজের পরে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় নাদিরুজ্জামান মৃধা নামের এক ইউপি সদস্যসহ ৯জনকে আটক করেছে পুলিশ। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এ ঘটনায় পুলিশের পক্ষ থেকে মামলা দায়েরের প্রস্ততি চলছে। আহত পুলিশ সদস্যরা হলেন, পুলিশের এসআই আনোয়ার হোসেন, পুলিশ সদস্য ফজলে রাব্বি, সেকেন্দার ও নারী পুলিশ জয়া সরকার। নাটোর সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল হাসনাত ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। জানা যায়, জুমার নামাজে পূর্ব হাগুরিয়া মসজিদের ইমাম সাহেব সরকারি নীতি অনুযায়ী ১২ জন মুসল্লি নিয়ে মসজিদের দরজা বন্ধ করে জুমার নামাজ আদায় করেন। এতে শাহীন নামে স্থানীয় যুবকসহ আরো কয়েকজন জুমার নামাজে অংশ নিতে ব্যর্থ হয়। নামাজ শেষে শাহীন মসজিদের ইমামের উপর চড়াও হলে উপস্থিত মুসল্লিরা তাকে মারপিট করেন। এ ঘটনায় শাহিন পুলিশে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। তৎক্ষণাৎ উত্তেজনা থামাতে সেখানে স্থানীয় ইউপি সদস্য নাদিরুজ্জামান মৃধা ওরফে নাদিম সেখানে উপস্থিত হন। এ সময় পুলিশের সাথে স্থানীয়রা প্রথমে তর্ক ও পরে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এলাকাবাসীর হামলা ও ইটপাটকেল নিক্ষেপে এক নারী কনস্টেবল ও উপ-পরিদর্শকসহ চার পুলিশ সদস্য আহত হয়। এ ঘটনায় ইউপি সদস্য নাদিরুজ্জামান মৃধাসহ ৯ জনকে আটক করে পুলিশ। বর্তমানে এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছ। এ ব্যাপারে নাটোর সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল হাসনাত বলেন, এ ঘটনায় তিনজন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। তাদের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। এ হামলার ঘটনায় মামলা দায়ের প্রক্রিয়াধীন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *