Logo
HEL [tta_listen_btn]

আড়াইহাজারে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলনের সময় ড্রেজার পুিড়য়ে দিল গ্রামবাসি

আড়াইহাজারে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলনের সময় ড্রেজার পুিড়য়ে দিল গ্রামবাসি

জাকির হোসেন :

নারায়নগঞ্জের আড়াইহাজারে অবৈধ ভাবে মেঘনা নদী থেকে বালু উত্তোলনের সময় ড্রেজার পুড়িয়ে ডুবিয়ে দিল ক্ষুব্ধ গ্রামবাসী।
ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার ভোরে উপজেলার কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়নের চর লক্ষিপুরা এলাকায়। এলাকাবাসী জানায় কুমিল্লার মেঘনা থানার চালিভাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আঃ লতিফ ওরফে লতু দীঘদিন যাবত আড়াইহাজারের মেঘনা নদীর সিমানা চর লক্ষিপুরা এলাকা থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে আসছে।বালু উত্তোলনের ফলে আড়াইহাজার উপজেলা ডেঙ্গুরকান্দী,চরলক্ষিপুরা,মধ্যারচর,কমলাপুর,ঝাউকান্দী,ইজারাকান্দী,গবিন্দপুর,তাতুয়াকান্দা,নয়নাবাদ,নয়াপাড়া এ গ্রামগুলোর বেশ কিছ অংশ নদি গর্ভে বিলিন হয়ে গেছে। এ দশ গ্রামের মানুষ কয়েকবার লতু চেয়ারম্যানকে বালু উত্তোলনে বাধা প্রধান করলেও তিনি বাধা উপেক্ষা করে বালু উত্তোলন অব্যাহত রেখেছেন। ওই গ্রামগুলো সম্পুর্ন নদী গর্ভে বিলিন হয়ে যাওয়ার আশংকায় শনিবার ভোরে এলাকাবাসী জড়ো হয়ে ট্রলার যোগে গিয়ে চেয়ারম্যানের দুটি ড্রেজার এবং একটি স্প্রিডবোর্ড পুড়িয়ে দিয়ে একটি ড্রেজার মেঘনা নদীতে ডুবিয়ে দেন। এ বিষয়ে লতু চেয়ারম্যান মুঠোফোনে জানান তিনি বৈধভাবে মেসার্স নার্গিস ট্রেডাসের মাধ্যমে ইজারে নিয়ে মেঘনা নদী থেকে বালুউত্তোলণ করছেন। শনিবার ভোরে আক্রোশমুলক ভাবে কালাপাহাড়িয়ার কিছু লোকজন এসে তার ড্রেজার পুড়িয়ে দেন এবং ড্রেজারে থাকা মিঠু (২৫) হোসেন (২০) আনার (৩০) আজিজ (২৬) নামে ৪ শ্রমিককে মেরে আহত করেন। বাবুল এবং মঞ্জুর নামে দুই শ্রমিক নিখোজ রয়েছে বলে তিনি জানান।এ বিষয়ে আড়াইহাজার থানার ওসি তদন্ত মোঃ শওকত আলী জানান, আমরা এ ব্যপারে লিখিত কোন অভিযোগ পাইনি পেলে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Theme Created By Raytahost.Com