Logo

জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহে প্রকাশ হবে  এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল

জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহে প্রকাশ হবে  এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল

 

নিজস্ব সংবাদদাতা:
করোনাভাইরাসের সংক্রমণের কারণে এবার সরাসরি পরীক্ষা ছাড়াই এইচএসসি ও সমমানের শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করা হবে। শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি জানিয়েছিলেন, এ মাসেই এই মূল্যায়নের ফল ঘোষণা করার চিন্তা ভাবনা ছিলো। কিন্তু আইনি বাধ্যবাধকতার কারণে সেটি সম্ভব হচ্ছে না, শিগগির অধ্যাদেশ জারির পর ফল প্রকাশ করা হবে। আজ মঙ্গলবার (২৯ ডিসেম্বর) এক ভার্চ্যুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি। এ সময় তিনি শিক্ষার বিভিন্ন পদক্ষেপ তুলে ধরেন।শিক্ষামন্ত্রী জানিয়েছেন, ফল তৈরি আছে। অধ্যাদেশ জারি হওয়া মাত্রই ফল ঘোষণা করা হবে। জানুয়ারির প্রথম সপ্তাহে এই অধ্যাদেশ জারি হবে এবং সঙ্গে সঙ্গেই ফল প্রকাশ করা হবে। সংবাদ সম্মেলনে কীভাবে এই মূল্যায়নের কাজ হচ্ছে, তার কিছু ধারণা দিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, মূলত, জেএসসি, এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল সমন্বয় করেই এই ফল প্রকাশ করা হবে। জেএসসি, এসএসসি ও এইচএসসির বিষয়গুলোকে ‘ম্যাপিং’ করে বিষয়ভিত্তিক ফল প্রকাশ করা হবে। এ ছাড়া বিভাগ ও বোর্ড পরিবর্তন, মানোন্নয়নসহ অন্যান্য বিষয়ে এ বিষয়ে করা পরামর্শক কমিটির সুপারিশে কাজটি হবে। ফল নিয়ে কেউ ক্ষুব্ধ হলে বোর্ডে আবেদন পারবে। তবে শিক্ষামন্ত্রীর আশা, ফল নিয়ে কেউ সংক্ষুব্ধ হবে না। তাঁর ভাষ্য, এবার তো সবাই পাস করবেন। এবার পরীক্ষা না হওয়ায় ফরম পূরণের সময়ে নেওয়া টাকার মধ্যে যে পরিমাণ টাকা ব্যয় হয়নি, সেই টাকা শিক্ষার্থীদের ফেরত দেওয়া হবে। ফল প্রকাশের পর সে বিষয়ে নির্দেশনা শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে দেওয়া হবে। উল্লেখ্য, গত ৭ অক্টোবর সরকার ঘোষণা দিয়েছিল, করোনার কারণে এ বছর উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) ও সমমানের পরীক্ষা হবে না। জেএসসি, এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার গড় ফলের ভিত্তিতে এইচএসসির ফল ঘোষণা করা হবে। এবার এইচএসসি ও সমমানের মোট পরীক্ষার্থী ১৩ লাখ ৬৫ হাজার ৭৮৯ জন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *