Logo
HEL [tta_listen_btn]

রূপগঞ্জে নকল প্রসাধনী কারখানা

রূপগঞ্জে নকল প্রসাধনী কারখানা

রূপগঞ্জ সংবাদদাতাঃ
রূপগঞ্জে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা একটি অবৈধ প্রসাধনীর কারখানায় অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ নকল প্রসাধনী উদ্ধার করেছে ভূলতা ফাঁড়ির পুলিশ। এ সময় কারখানার তিনজন কর্মচারীকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হলেন, নেত্রকোণা জেলার মদন উপজেলার শিপাসা এলাকার আব্দুস সামাদের ছেলে মোস্তাফিজুর রহমান (১৬), মনজুরুলের ছেলে আরমান(২৮), আবু সাঈদের ছেলে লাক মিয়া (৫৫)। আটকৃতদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা দায়ের করে তাদের গ্রেফতার দেখিয়ে শুক্রবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) আদালতে পাঠিয়েছে পুলিশ।  এরআগে বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রæয়ারি) রাত সাড়ে ৮টার দিকে ভূলতা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ নাজিম উদ্দিন মজুমদারের নেতৃত্বে একটি টিম উপজেলার গোলাকান্দাইল ইউনিয়নের নীলভিটা এলাকার মতি মিয়ার বাড়িতে অবস্থিত কারখানায় অভিযান চালায়। এ সময় কারখানা থেকে নকল প্রসাধনী সামগ্রীসহ ওই তিনজনকে আটক করা হয়। ভূলতা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ নাজিম উদ্দিন মজুমদার জানান, অবৈধ প্রসাধনী কারখানাতে দাঁতের মাজন, মশার কয়েল, আগরবাতি, প্যারাসুট নারিকেল তেল, নকল বেবি সোপ, বেবি ওয়েল,বেবি পাউডার, বেবি লোশন, অলিভ ওয়েল, বেবি সেম্পু, ক্লিন এন্ড ক্লিয়ার, সেন্ট স্প্রে, হেয়ার কালার, হেয়ার ওয়েল ও হেয়ার রিমুভার, সরিষার তেলসহ আরো বিভিন্ন ধরনের পণ্য তৈরি হয় বলে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানা যায়। এসব নকল প্রসাধনীতে নিজেদের তৈরি লেবেল ও মূল্য তালিকা লাগানো রয়েছে। নকল প্রসাধনী তৈরির কারখানা থেকে তিনজন কর্মচারীকে আটক করা হয়। এ ব্যাপারে রূপগঞ্জ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মহসিনুল কাদের জানান, আমরা গোপন সূত্রে একটি বাড়ি থেকে নকল প্রসাধনী কারখানায় অভিযান চালিয়ে তিনজনকে আটক করেছি। তাদের বিরুদ্ধে একটি মামলা হয়েছে। তাদেরকে নারায়ণগঞ্জ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Theme Created By Raytahost.Com