Logo
HEL [tta_listen_btn]

স্বস্তির খবর – ৩শ’ শয্যা হাসপাতালে তরল অক্সিজেন

স্বস্তির খবর – ৩শ’ শয্যা হাসপাতালে তরল অক্সিজেন

নিজস্ব সংবাদদাতা:
অবশেষে স্বস্তির খবর পাওয়া গেল। করোনারোগীদের দীর্ঘদিনের প্রত্যাশা পূরণ হলো। এই মুহূর্তে নারায়ণগঞ্জে করোনারোগীর সংখ্যা বাড়ছে, অন্যদিকে বাড়ছিল অক্সিজেনের চাহিদা। সবার সম্মিলিত প্রচেষ্টা ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সহযোগীতায় অবশেষে লিকুইড (তরল) অক্সিজেন পেল নারায়ণগঞ্জ ৩শ’ শয্যা হাসপাতাল। নারায়ণগঞ্জ ৩শ’ শয্যা হাসপাতালে শনিবার (১৭ জুলাই) রাত ১০টার দিকে এসে পৌঁছায়। জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি ও জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহ গণমাধ্যমকে জানান, এখন থেকে সেন্ট্রাল অক্সিজেন সাপ্লাই এর মাধ্যমে হাসপাতালের সকল রোগীকে হাই-ফ্লো অক্সিজেন দেওয়া সম্ভব হবে। গুরুতর অসুস্থ কোভিড রোগীদের উপশমে এই হাই-ফ্লো অক্সিজেন কার্যকর ভূমিকা রাখবে। অনুসন্ধানে জানা গেছে, জুন মাসের ১৬ তারিখে ১৪ জন, ১৭ তারিখে ১৭ আর ১৮ তারিখে মাত্র ১২ জন আক্রান্ত হয়ে ছিল। মাত্র এক মাসের ব্যবধানে জুলাই মাসের ১৬ তারিখে আক্রান্ত হয়েছে ২৪৭ জন, ১৭ তারিখে ২০৯ আর ১৮ তারিখে ১৯২ জন আক্রান্ত হয়েছে। এছাড়া গত ৩ দিনে ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ অবস্থায় ইউনিসেফের অর্থায়নে চলতি বছরের ৯ মে হাসপাতাল চত্তরে অক্সিজেন ট্যাংক স্থাপন করা হলেও একটি বারের জন্যও তরল (লিকুইড) অক্সিজেন আসেনি। তাই অক্সিজেনের জন্য জেলা প্রশাসক থেকে শুরু করে স্থানীয় ২ এমপি, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরসহ সরকারের বিভিন্ন সংস্থা চেষ্টা করেন। অবশেষে অক্সিজেন সাপ্লাই সরবরাহ সফল হয়েছে। হাসপাতালটির চিকিৎসা তত্ত¡াবধায়ক ডা. আবুল বাসার বলেন, অক্সিজেন ট্যাংক ১২ হাজার লিটারের। কিন্তু প্রথম অবস্থায় ৪ হাজার ৯শ’ ১২ লিটার দেওয়া হয়েছে। সব কিছুই প্রস্তুত রয়েছে। বিকেলে পরীক্ষা নিরীক্ষা করে ইঞ্জিনিয়াররা আসলে প্রতিটি রোগীর শয্যার সাথে সংযুক্ত করা হবে। প্রথম পর্যায়ের অক্সিজেন দিয়ে আগামী ৬-৮ দিন চলা যাবে বলে আমি আশাবাদী। প্রসঙ্গত, বর্তমানে নারায়ণগঞ্জের ৩শ’ শয্যা হাসপাতালে রোগী ভর্তি রয়েছে ৮২ জন। এর মধ্যে আইসিইউতে চিকিৎসা নিচ্ছে ১০ শয্যায় ১০ জন রোগী।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Theme Created By Raytahost.Com