Logo
HEL [tta_listen_btn]

একই পরিবারের ৩ মাদকব্যবসায়ী গ্রেফতার

একই পরিবারের ৩ মাদকব্যবসায়ী গ্রেফতার

বন্দর সংবাদদাতা:
ধামগড় ফাঁড়ি পুলিশ অভিযান চালিয়ে একই পরিবারের ৩ মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হলেও কৌশলে পালিয়ে গেছে সুজন ও সোহেল ওরফে খোকা নামে অপর দুই মাদক ব্যবসায়ী। ওই সময় পুলিশ গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ী তোফাজ্জল মিয়ার ঘর তল্লাশী করে ১ হাজার ৯শ’ পিছ ইয়াবা ট্যাবলেট ও ৭ কেজি গাঁজা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। বুধবার (২৮ জুলাই) রাত ১২টা ৪৫ মিনিটে বন্দর উপজেলার দেওয়ানবাগস্থ ছোটবাগ এলাকা থেকে উল্লেখিত মাদকদ্রব্যসহ এদেরকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয় পুলিশ। এ ব্যাপারে ধামগড় ফাঁড়ি উপ-পরিদর্শক সিরাজ উদ দৌল্লাহ বাদী হয়ে গ্রেফতারকৃত ৩ মাদক ব্যবসায়ীসহ পালিয়ে যাওয়া অপর ২ মাদক ব্যবসায়ী সুজন ও সোহেল ওরফে খোকাকে আসামী করে বন্দর থানায় মাদক আইনে মামলা রুজু করেন। যার মামলা নং- ৩৪(৭)২১। গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ীরা হলো বন্দর উপজেলার দেওয়ানবাগস্থ ছোটবাগ এলাকার মৃত সুবেদ মিয়ার ছেলে তোফাজ্জল হোসেন (৬০) ও তার স্ত্রী আমেনা বেগম (৫২) এবং তাদের ছেলে রিপন (২৫)। পলাতক আসামীরা হলো সোহেল ওরফে খোকা (২৮) একই এলাকার গ্রেফতারকৃত তোফাজ্জল হোসেন মিয়ার ছেলে ও অপর পলাতক আসামী সুজন (৩০) একই এলাকার কানা মতিন মিয়ার ছেলে বলে জানা গেছে। পুলিশ গ্রেফতারকৃতদের বৃহস্পতিবার দুপুরে যথাযথ নিয়মে আদালতে প্রেরণ করেছে পুলিশ। থানা সূত্রে জানা গেছে, বন্দর থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোঃ মহসিন এর নেতৃত্বে বন্দর থানা ও ধামগড় ফাঁড়ি পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দেওয়ানবাগস্ত ছোটবাগ এলাকার তোফাজ্জল মিয়ার বাড়িতে অভিযান চালায়। অভিযানকালে পুলিশ তোফাজ্জল মিয়ার বসত ঘরে তল্লাশী চালিয়ে ১ হাজার ৯শ’ পিছ ইয়াবা ট্যাবলেট ও ৭ কেজি গাঁজা উদ্ধারসহ মাদক ব্যবসায়ী স্বামী স্ত্রী ও ছেলেকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়। ওই সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে সোহেল ওরফে খোকা ও সুজন নামে আরো দুই মাদক ব্যবসায়ী কৌশলে পালিয়ে যায়। উদ্ধারকৃত মাদকদ্রব্যের মূল্য ৭ লাখ ১০ হাজার বলে থানা সূত্রে আরো জানা গেছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Theme Created By Raytahost.Com