Logo

ওয়াক্ফ সম্পত্তি দখলের চেষ্টা

ওয়াক্ফ সম্পত্তি দখলের চেষ্টা

মুন্সিগঞ্জ সংবাদদাতা:
মুন্সিগঞ্জের রিকাবী বাজারের নুরপুর এলাকায় ওয়াক্ফ সম্পত্তির অবৈধ দখল করার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে গোলাম সারোয়ার জুয়েল নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী মোতয়াল্লী শওকত হোসেন জিল্লু মুন্সিগঞ্জের আদালতে মামলা করেছেন। গ্রামবাসী জানিয়েছে, মোতয়াল্লী শওকত হোসেন জিল্লুর বাবাও ছিলেন একজন মোতয়াল্লী। সেই সূত্রে তিনি ওয়াক্ফ এস্টেটের মোতওয়াল্লী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। অনেক বছর আগেই ওয়াক্ফ এস্টেট তাদের জমি বরাদ্দ দেন রিকাবী বাজারের নুরপুর এলাকায়। সেখানে তারা বাড়ি তুলে থাকছেন দীর্ঘদিন ধরে। সম্প্রতি বাড়িটির প্রবেশ পথ জোড় করে বন্ধ করে দিয়ে সেখানে স্থাপনা বানানোর চেষ্টা করছে গোলাম সারোয়ার জুয়েল নামের এক যুবক। এ নিয়ে প্রতিবাদ করলে উল্টো মোতয়াল্লী শওকত হোসেন জিল্লুর নামে থানায় অভিযোগ করেন তিনি। মোতয়াল্লী শওকত হোসেন জিল্লু বলেন, গোলাম সারোয়ার জুয়েল সর্ম্পকে আমার চাচাতো ভাই হলেও সে একজন ভূমি দূশ্য। বিভিন্ন মানুষের জায়গা দখল করেত সে পায়তারা করে। বর্তমানে আমাদের বাড়ির রাস্তা ওয়াক্ফ সম্পত্তি দখল করতে পায়তারা করছে। আমরা তাকে বাঁধা দেয়ায় সে আমাদের পরিবারের লোকজন কে হুমকি দিচ্ছে। এমনকি মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করবে বলে হুমকি দিয়েছে। ,তবে এসব অভিযোগ অস্বিকার করেছেন গোলাম সারোয়ার জুয়েল। তিনি দাবি করেন, শওকত তার চাচাতো ভাই। তারা পাশাপাশি থাকেন। তাদের মধ্যে জায়গা নিয়ে অনেক আগে থেকে জামেলা চলছে। শওকত তাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছে। তিনি শুধু একটি অভিযোগ করেছেন। থানায় দেয়া অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে হাতিমারা পুলিশ ফাড়ির পরির্দশক জানান, মূলত ওয়াক্ফ এস্টেটের জায়গাটি তাদের পূর্ব পুরুষদের। আমরা ঘটনাটি তদন্ত করেছি। সূত্র জানা গেছে, এর আগেও দীর্ঘদিন ধরে ওয়াক্ফ এস্টেটের একটি মার্কেটের দোকান ঘর ও জমি দখল করার নানা ষড়যন্ত্র করেছে একটি চক্র। এ নিয়ে গোলাম ফারুক নামে এক ব্যক্তি এস্টেটের ৪ শতাংশ সম্পত্তি নিজ নামে রেকর্ড করে রূপালী ব্যাংক থেকে ঋণও নিয়েছিলেন। তবে সেই টাকা ফিরত দিতে পারেনি। পরবর্তীতে তার নামে ব্যাংক মামলা করে। আর এ নিয়ে ওই এলাকায় জুড়ে নানা সমালোচনা সৃষ্টি হয় তখন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

20 + 1 =


Theme Created By Raytahost.Com