Logo
HEL [tta_listen_btn]

রূপগঞ্জ প্রশাসনের মৎস্য উৎসব

রূপগঞ্জ প্রশাসনের মৎস্য উৎসব

রূপগঞ্জ সংবাদদাতা
রূপগঞ্জে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উৎসবমূখর পরিবেশে বরশি দিয়ে মাছধরা উৎসবের আয়োজন করা হয়েছে। শুক্রবার ২৮ অক্টোবর থেকে শনিবার ২৯ অক্টোবর পর্যন্ত ২ দিনব্যাপী উপজেলার ভুলতার এলাকার উপজেলা প্রশাসনের তত্ত¡াবধানে থাকা সরকারি দীঘিতে এ মৎস্যউৎসবের আয়োজন করা হয়। প্রতিবছরের ন্যায় এবছরও এই সময়ে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে এই উৎসব শুরু হয়। মাছ টিকিটের জন্য ৫০টি টিকিট বিক্রি করা হয়। প্রতিটি টিকিটের মূল্য নির্ধারণ করা হয় ২০ হাজার টাকা। সকাল থেকেই শত শত মানুষ মাছ ধরা দেখতে পাড়ের দিকের চতুপাশের্^ ভিড় করে। উৎসবে প্রতিযোগিতা চলছে কে কত বড় মাছ ধরতে পারে। রুই, মৃগেল, কাতলা, পাঙ্গাস, কালিবাউশ, লাইলনটিকাসহ নানা ধরণের ছোট বড় মাছ ধরছেন শিকারীরা। এসময় পাট ও বস্ত্রমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী (বীর প্রতীক) ও তার সহধর্মিণী তারাব পৌরসভার মেয়র হাসিনা গাজী মৎস্য উৎসবে অংশগ্রহণ করেন। এসময় তিনি ১২ কেজি ওজনের একটি ব্রিগেট মাছ বরশি দিয়ে ধরেন। গাজীপুর, ভৈরব, নারায়ণগঞ্জসহ দেশের দূর-দূরান্ত থেকে মাছ ধরতে আসেন অনেকে। মাছধরা উৎসবে সাধারণ মানুষের পাশাপাশি জেলা প্রশাসক মঞ্জুরুল হাফিজ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) ফয়সাল হক, সহকারি কমিশনার ভূমি কামরুল হাসান মারুফ, রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এএফএম সায়েদসহ বিভিন্ন সরকারি কর্মকর্তা, রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, ব্যবসায়ীরাও অংশগ্রহণ করে। এ ব্যাপারে সাংবাদিক সাইফুল ইসলাম বলেন, উৎসবমূখর পরিবেশে মাছধরা উৎসব শুরু হয়েছে। এ আয়োজনের মধ্য দিয়ে এখানে উৎসবের আমেজ বয়ে যাচ্ছে। যারা মাছ ধরতে ভালবাসেন এটি তাদের জন্য একটি খুব সুন্দর আয়োজন দেশে বিভিন্ন প্রান্ত থেকে এখানে অনেকে মাছ ধরতে এসেছেন। মাছ শিকারি মামুন মিয়া সুমন মোল্লা, শাহ আলমসহ আরো অনেকেই জানান, ভুলতা কাচারি দিঘিতে প্রতিবছর এই সময়ে টিকেটের মাধ্যমে বরশিদিয়ে মাছ ধরার আয়োজন করেন উপজেলা প্রশাসন। এবার প্রতিটি টিকেটের মূল্য নেওয়া হচ্ছে২০ হাজার টাকা করে। দেশের বিভিন্ন জেলা উপজেলা থেকে শখের বসে মাছ শিকারিরা টিকেট ক্রয় করে মাছ ধরতে শুরু করেছেন। বিশেষ করে শুক্রবার সকাল ১০টায় মাছ ধরা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও শিকারিরা ভোর থেকেই কাচারি দিঘির পাশে প্রস্তুত ছিলেন। এ বিষয়ে রূপগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফয়সাল হক বলেন, জনপ্রতিনিধি, জেলা প্রশাসক, থানার ওসি, পৌর মেয়র ইউপি চেয়ারম্যান, শিল্পপতি, ব্যবসায়ী, সাংবাদিক ও রাজনৈতিক নেতাকর্মীসহ বিভিন্ন পেশাজীবী মানুষ টিকেট ক্রয় করে ভুলতা কাচারি দিঘিতে মাছ ধরা উৎসবে অংশগ্রহণ করেছেন। কে কত বড় মাছ শিকার করবে চলছে তার প্রতিযোগিতা।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


Theme Created By Raytahost.Com